ছদকের শিরোপা অপেক্ষা বাড়াল প্রতিভাস

556
Advertisement

: কাজী রোমাট, স্পেসাল করেসপন্ডেন্ট : শিরোপা উৎসবের প্রস্তুতি নিয়েই এসেছিল ছদক ক্লাব। গ্রুপ ম্যাচে বড় ব্যবধানে উড়িয়ে দেয়া প্রতিভাস সুপার ফোরে কতটা বাধা হয়ে দাড়াবে অপ্রতিরোধ্য ছদকের সামনে, তা মানতে নারাজ সমর্থকরা। তাই বাদ্য-বাজনা নিয়ে উচ্ছসিত আত্মবিশ্বাস নিয়ে বিপুল সংখ্যক দর্শক এসেছিল ছদক বনাম প্রতিভাসের ম্যাচ দেখতে। ম্যাচ জিতে শিরোপা উৎসব করতে করতে ঘরে ফেরার মনো কামনা নিয়ে আসলেও, শিরোপা উৎসবে পানি ঢেলে দিল সুপার ফোরে বদলে যাওয়া প্রতিভাস। এদিন গোল শুন্য ড্র তে শক্তিশালী ছদককে রুখে দিল প্রতিভাস। লীগের জৌলুস বাড়িয়ে শিরোপার অপেক্ষাটা বাড়িয়ে রাখল শেষ ম্যাচ পর্যন্ত।

এদিন উৎসবমুখর পরিবেশে দর্শক আসতে থাকে গ্যালারীতে. একদিকে ছদক জিতলেই চ্যাম্পিয়ন অন্যদিকে প্রতিভাস ড্র বা জিতলে লীগে ঠিকে থাকবে তারা। লীগের প্রথম রাউন্ডে ছদকের কাছে ৫-০ গোলের হার তাদের কে ভুগিয়েছে বেশ তাই এই ম্যাচে প্রতিভাসের রক্ষণভাগ ছিল সমীহ জাগানোর মত। ছদকের অনেকগুলো আক্রমন বেশ ঠান্ডা মাথায় ফিরিয়েছে তারা। অন্যদিকে, প্রতিভাসেও পাল্টা আক্রমনও খেই হারিয়ে ফেলে ছদকের ডিফেন্সের কাছে। এরপরও দুএকটা সুযোগ এসেছিল দুদলের সামনে। কাজে লাগাতে না পারায় ম্যাচ শেষ করতে হয় ড্র দিয়েই।

ম্যাচ শেষে ম্যান অব দ্যা ম্যাচ ছদক ক্লাবের শফিকের হাতে বিশিষ্ট ক্রীড়া সংগঠক ও মোহামেডান ক্লাবের যুগ্ম সম্পাদক আব্দুল মন্নান ঘোষিত পুরস্কারের নগদ অর্থ তুলে দেন পৌর মেয়র আকবর হোসেন। 

ম্যাচটি ড্র হওয়ায় লীগের উত্তেজনা ঠিকে রইল শেষ ম্যাচ পর্যন্ত। এ ড্রয়ে ছদকের পয়েন্ট সংখ্যা ১৯ এবং প্রতিভাসের ১৬। ছদক আগামী ২৯ নভেম্বর মুকুল ফৌজের সাথে শেষ ম্যাচ খেলবে। এর আগে ২৭ নভেম্বর প্রতিভাস খেলবে আবাহনীর সাথে।

রবিবারের খেলা ঃ মুকুল ফৌজ বনাম আবাহনী (বিকাল ৩টা)